যাত্রীবোঝাই বাস খাদে,
তেলেঙ্গানায় নিহত ৫১

যাত্রীবোঝাই বাস খাদে,<br>তেলেঙ্গানায় নিহত ৫১
+

হায়দরাবাদ, ১১ই সেপ্টেম্বর— তেলেঙ্গানার জগতিয়াল জেলায় একটি বাস দুর্ঘটনায় ৫১জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতদের অধিকাংশই মহিলা। শিশুও রয়েছে বেশ কয়েকটি। আরও ১০জন আহত হয়েছেন। তাঁদের অবস্থা সংকটজনক হওয়ায় মৃতের সংখ্যা আরও বৃদ্ধির আশঙ্কা করা হচ্ছে। মঙ্গলবার বেলা সাড়ে এগারোটা নাগাদ হায়দরাবাদ থেকে ২০০কিলোমিটার দূরে তেলেঙ্গানা স্টেট রোড ট্রান্সপোর্ট কর্পোরেশন (টি এস আর টি সি)-র বাসটি শনিবারাপেট গ্রামের কাছে রাস্তা থেকে হড়কে খাদে পড়ে যায়। কোন্দাগাট্টু থেকে জাগতিয়াল যাওয়ার সময়ে এই দুর্ঘটনা ঘটে। তেলেঙ্গানার তদারকি সরকার নিহতদের পরিবার পিছু ৫লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণের ঘোষণা করেছে। 
প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা গেছে, বাসটিতে ৬০-৬৫জন যাত্রী ছিলেন। যদিও বাসটির যাত্রী বহন ক্ষমতা মাত্র ৫৪জনের। জগতিয়াল জেলা পুলিশ সুপার সিন্ধু শর্মা জানিয়েছেন, জগতিয়াল জেলা হাসপাতাল এবং সংলগ্ন করিমনগরে চিকিৎসার জন্য আহতদের নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তিনি জানিয়েছেন, অনুমান করা হচ্ছে একটি মোড় ঘোরার সময়ে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে বাসটি খাদে পড়ে যায়। যদিও পূর্ণাঙ্গ তদন্তের আগে দুর্ঘটনার কারণ সম্পর্কে নিশ্চিত করে কিছু বলতে চাননি তিনি। তবে জানা যাচ্ছে, বাসটির ব্রেক কাজ করছিল না। কেউ কেউ জানিয়েছেন, অন্য একটি বাসের সঙ্গে সংঘর্ষ এড়াতে গিয়ে দুর্ঘটনায় পড়ে এই বাসটি। জেলাশাসক জানিয়েছেন ৩৫জনের দেহ শনাক্ত করেছেন পরিজনরা। ময়নাতদন্তের পর দেহগুলি পরিজনদের হাতে তুলে দেওয়া হবে বলেও তিনি জানান। বাসটির চালক ৫১বছর বয়সি শ্রীনিবাসেরও মৃত্যু হয়েছে দুর্ঘটনায়। 
দুর্ঘটনাস্থলেই বহু মানুষের মৃত্যু হয়। এদের মধ্যে ৭টি শিশুও রয়েছে। প্রাথমিকভাবে ৪০জনের মৃত্যুর খবর জানানো হলেও হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া আরও ১১জনের মৃত্যু হয়। জানা গেছে জগতিয়াল ডিপোর বাসটি অনেক বেশি যাত্রী নিয়ে পাহাড়ের উপরের কোন্দাগাট্টু মন্দিরে এসেছিল। কোন্দাগাট্টু ঘাট রোড হয়ে শনিবারামপেটা গ্রাম থেকে জগতিয়ালে ফেরার ছিল বাসটির। মাঝপথেই অতিরিক্ত যাত্রীবোঝাই বাসটি দুর্ঘটনায় পড়ে। প্রাথমিকভাবে বলা হয় একটি তীব্র মোড়ে বাসচালক নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেন। অধিকাংশ যাত্রীই ডানদিকে হেলে পড়েন। ভারসাম্য হারিয়ে বাসটি পড়ে যায় গভীর খাদে। অনেকেই শ্বাসরুদ্ধ হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন যেহেতু একজনের উপর আরেকজন পড়েছিলেন। বাসটি দুর্ঘটনায় পড়লে পিছনে আসতে থাকা অনেকগুলি গাড়ির যাত্রীরা নেমে স্থানীয়দের নিয়ে উদ্ধার কাজ শুরু করেন। গুরুতর জখমদের প্রথমেই জগতিয়াল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। 

Current Affairs

Featured Posts

Advertisement